অচেনা স্বাদে চেনা পদ – ২

নিয়মমাফিক আজ আবারও হাজির হেঁশেলের খবর। অচেনা স্বাদে চেনা পদ-কে চিনতে গত সপ্তাহে আপনাদের শিখিয়েছিলাম চিকেন পাতুরি। বাড়িতে নিশ্চয় বানানো হয়েছে! এই সপ্তাহে আরও একবার স্বাদ বদল করতে হাতের সামনে থাকা কিছু ঘরোয়া উপকরণ দিয়ে বানিয়ে ফেলা যাক চেনা কোনো পদ কিন্তু একটু ভিন্ন স্বাদে।

ধোকার নাম শুনলেই কী মনে পড়ে আপনাদের? সম্পূর্ণ নিরামিষ একটা পদ, ছোলার ডাল আর মটর ডালের বানানো ধোকা, সাধারণত পূজো বা ওই জাতীয় অনুষ্ঠানেই বানানো হয়ে থাকে, তাই তো? কিন্তু এই ধোকাতেই যদি ধোকা দেওয়া যায় তবে কেমন হয়? ধরুন যদি নিরামিষ ধোকা-কে বানিয়ে দেওয়া হয় আমিষ, তবে কেমন হবে? তাহলে আজ বরং আমিষ ধোকার পদ-ই শিখে নেওয়া যাক। চলুন শিখে ফেলি “ডিম ধোকার ডালনা”।

 

ডিম ধোকার ডালনা বানাতে প্রয়োজনীয় উপকরণ:

 

ধোকা বানাতে যা যা লাগবে-

 

ডিম ৫ টি; পেঁয়াজের কিমা ১/৩ কাপ; কাঁচালঙ্কা কুচি ২ চামচ; রসুনের কিমা ১ চামচ; ধনেপাতা কুচি ২ চামচ; নুন স্বাদ অনুযায়ী।

 

ডালনা বানাতে যা যা লাগবে-

 

গোটা গরমমশলা (ছোটো এলাচ, লবঙ্গ, দারুচিনি); হিং; তেজপাতা; কুচোনো পেঁয়াজ ১/২ কাপ; রসুন বাটা ৩ চামচ; আদা বাটা ১ চামচ; টম্যাটো বাটা ১/৪ কাপ; হলুদ গুঁড়ো ১/২ চামচ; জিরে গুঁড়ো ১ চামচ; ধনে গুঁড়ো ২ চামচ; লঙ্কা গুঁড়ো ১ চামচ; গরমমশলা গুঁড়ো ১/২ চা চামচ; কাজুবাদাম বাটা ২ চামচ, ফেটানো টক দই ২ চামচ; সাদা তেল ২ চামচ; ঘি ২ চামচ; নুন ও চিনি স্বাদ অনুযায়ী।

 

ডিম ধোকার ডালনা বানানোর প্রণালী:

 

১. একটি বড় পাত্রে ৫ টি ডিম ভালো ভাবে ফেটিয়ে নিতে হবে। এবার তাতে স্বাদ মতো নুন, পেঁয়াজ কুচি, রসুন কুচি, কাঁচালঙ্কা কুচি ও ধনেপাতা কুচি দিয়ে ভালোভাবে মিশিয়ে নিতে হবে।

২. একটি বড় স্টিলের টিফিনবক্সে ভালোভাবে তেল মাখিয়ে ডিমের মিশ্রণ ঢেলে দিতে হবে এবং ঢাকনা ভালোভাবে চেপে বন্ধ করে ফুটন্ত জলের ওপর টিফিনবক্সটি বসিয়ে মিশ্রণটি ভাপিয়ে নিয়ে হবে প্রায় মিনিট ২০।

৩. এবার মিশ্রণটি ভাপানো হয়ে গেলে টিফিনবক্স জল থেকে তুলে নিয়ে একটু ঠান্ডা হতে রাখতে হবে। এবার মিশ্রণটি টিফিনবক্স থেকে বের করে নিয়ে ছোটো ছোটো চৌকো টুকরো করে কেটে নিতে হবে।

৪. এবার কড়াইতে তেল গরম করে ডিমের টুকরোগুলো ডুবো তেলে ভেজে তুলে নিতে হবে।

৫. এবার অন্য একটি কড়াইতে সাদা তেল ও ঘি গরম করে তাতে গোটা গরমমশলা, তেজপাতা ও হিং ফোড়ন দিয়ে তাতে কুচানো পেঁয়াজ দিয়ে ভাজতে হবে।

৬. পেঁয়াজ গোলাপি হয়ে এলে তাতে রসুন বাটা, আদা বাটা ও হলুদ গুঁড়ো দিয়ে মশলা কষাতে হবে। এবার তাতে টম্যাটো বাটা ও সমস্ত গুঁড়ো মশলা, স্বাদ মতো নুন আর চিনি দিয়ে ভালোভাবে কষতে হবে। এবার মশলা কষে তেল ছেড়ে এলে ফেটানো টক দই আর কাজুবাদাম বাটা দিয়ে আবারও কষাতে হবে।

৭. এবার ভাজা ডিমের টুকরো কষানো মশলায় দিয়ে ভালোভাবে মিশিয়ে গরম জল যোগ করতে হবে। এবার গ্রেভী ফুটে গেলে ওপর থেকে আরও কিছুটা ঘি ছড়িয়ে নামিয়ে নিলেই তৈরী “ডিম ধোকার ডালনা”। ভাত হোক বা রুটি, দুয়ের সাথেই জমে যাবে এই ভিন্ন স্বাদের পদ।

 

তাহলে বানিয়ে ফেলুন “ডিম ধোকার ডালনা” আর কেমন লাগল জানাতে ভুলবেন না যেন। আবারও নতুন কোনো রান্না নিয়ে ফিরব হেঁশেলের খবরে, অন্য কোনো দিন, আর তার জন্য থাকতে হবে LaughaLaughi-র সাথে।

Post Author: Satabdi Das

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *