Sports

সুইডেন বনাম কোরিয়া রিপাবলিক preview

সুইডেন বনাম কোরিয়া রিপাবলিক! Friendly ম্যাচের analysis-র আগে দুটো টিমের squad দেখে নেওয়া যাক।
সুইডেনের টিম –
গোলকিপার – Olsen, Johnsson, Nordfeldt
ডিফেন্ডার – Lustig, Lindelof, Granqvist, Olsson, Augustinsson, Helander, Krafth, Jansson
মিডফিল্ডার – Larsson, Ekdal, Forsberg, Svensson, Hiljemark, Claesson, Rohden, Durmaz
ফরোয়ার্ড – Berg, Guidetti, Toivonen, Kiese Thelin
Zlatan Ibrahimovic টিমে নেই কারণ উনি আন্তঃজাতিক খেলা থেকে অবসর নিয়েছেন।

সুইডেনের potential ১১ – Olsen; Lustig, Granqvist, Lindelof, Augustinsson; Claesson, Larsson, Ekdal, Forsberg; Berg, Toivonen
কোরিয়া রিপাবলিকের টিম –
গোলকিপার – Kim SG, Kim JH, Cho HW
ডিফেন্ডার – Lee Y, Jung SH, Oh, Yun, Park JH, Kim MW, Hong, Kim YG, Jang, Go
মিডফিল্ডার – Ju, Lee SW, Koo, Jung WY, Ki, Lee JS, Moon
ফরোয়ার্ড – Son, Kim SW, Hwang
কোরিয়া রিপাবলিকের potential ১১ – Kim SG; Lee Y, Jang, Kim YG, Park JH; Lee SW, Ki, Jung WY, Lee JS; Hwang, Son

এবার আসা যাক pre-match analysis-এ, ২০১৮ সালের বিশ্বকাপে সুইডেনের পৌঁছানো একটা বড় অস্বস্তিতে পরিণত হয় , কারণ তারা Gianluigi Buffon-র ইতালিকে চমকপ্রদভাবে পরাজিত করে বিশ্বকাপে প্রবেশ করেছে। Jakob Johansson, যে সোলানাতে তাদের বিশ্বকাপ যোগ্যতা অর্জন পর্বে সিদ্ধান্তমূলক গোল অর্জন করেছেন, সে friendly ম্যাচে চোট পাওয়াতে দল থেকে বাদ পড়ে। প্রকৃতপক্ষে যদি জানুয়ারির ম্যাচগুলো যথা এস্তোনিয়া ও ডেনমার্কের বিরুদ্ধে যেখানে সুইডেন পূর্ণ শক্তি নিয়ে নামেনি সেগুলোকে না ধরা হয়, তাহলে সুইডেন তাদের শেষ পাঁচ ম্যাচের 0-0 ব্যবধানে হেরেছে এবং তাদের শেষ দুটি friendly-মূলক ম্যাচে তথা ডেনমার্কের বিপক্ষে (আবার ) এবং পেরুর বিপক্ষেও তারা draw করেছে।

দক্ষিণ কোরিয়া ২০০২ সালে চতুর্থ স্থানে অবস্থান করে এবং একই দুর্বল ফর্ম নিয়ে ২০১৮ বিশ্বকাপে প্রবেশ করেছে। ইরান ও উজবেকিস্তানের বিপক্ষে অবিচ্ছিন্ন draw করার পর এএফসি কোয়ালিফাইং গ্রুপ-এ তারা দ্বিতীয় স্থানে অবস্থান করে তবে সাম্প্রতিক friendly ম্যাচ গুলো দেখলে দেখা যাবে তাদের নেতিবাচক ফলাফলের হার তুলনায় কমে এসেছে। প্রকৃতপক্ষে, মার্চ মাসে উত্তর আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে ২-১ ব্যবধানে পরাজিত হওয়ার পর থেকে তারা অন্য তিনটি ম্যাচে হেরেছে এবং কেবলমাত্র একবার জিতেছে। তারা নকআউট পর্বের মধ্যে প্রবেশ করার জন্য রীতিমতন একটা যুদ্ধের মুখোমুখি হয়, যেখানে তারা তাদের পূর্ববর্তী ১০ বার ফাইনালের জন্য যোগ্যতা অর্জন করেও ৬ বার গ্রুপ পর্যায়ে ছিটকে পড়েনি। তবে বিশ্বকাপের শুরুতেই একটি জয় তাদের দৃষ্টিভঙ্গি পরিবর্তন করতে পারে।

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close

Adblock Detected

Please consider supporting us by disabling your ad blocker